Sunday, May 26, 2024

নোটিসঃ আমাদের সকল প্রতিনিধি পার্সোনাল একাউন্ট থেকে নিউজ পাবলিশ করে থাকে, যে-কোনো সংবাদের দায়ভার তারা নিজেরাই বহন করবে।

Home Uncategorized বাউল শিল্পী মিয়া তানসেন) এর বিরুদ্ধে প্রকাশিত সংবাদ টি সম্পুর্ন মিথ্যা।

বাউল শিল্পী মিয়া তানসেন) এর বিরুদ্ধে প্রকাশিত সংবাদ টি সম্পুর্ন মিথ্যা।

মিয়া তানসেন একজন খ্যাতি সম্পুর্ন বাউল পালাগানের শিল্পী। পত্রিকায় উক্ত মিথ্যা সংবাদ প্রকাশিত হওয়ায় বাউল শিল্পী মিয়া তানসেন এর বাউল জগতে ব্যাপক সুনাম ক্ষুন্ন হয়েছে। এবং তার ব্যাক্তিগত মান সম্মানের হানি হয়েছে। পত্রিকার মাধ্যমে উক্ত মিথ্যা সংবাদ প্রকাশিত হওয়ায় মিয়া তানসেন তিব্র প্রতিবাদ জানায়।এবং তিনি প্রচলিত আইনে মিথ্যা সংবাদের ন্যায় বিচার চায়। তানসেন বলেন শিখা মেয়েটির কোনো আইডি হ্যাক করেন নি এবং ফেসবুকে এডভোকেট কথাটাও লিখেন নি।।বরং তিনি তার ব্যাক্তিগত আইডি Shikha Bishwas থেকে আমার নামে মানহানি পোস্ট করেছেন।এক সময় পোস্ট করেছেন বাউল শিল্পী মিয়া তানসেন নাকি মারা গিয়েছে।পুরো দেশবাসী শাক্ষী। মিয়া তানসেন একজন প্রতিষ্ঠিত বাউল পালাগানের শিল্পী তার হাতে যেমন বাজে সারিন্দা তেমনি তার বেহালা বাজানো তেমনি একজন তত্ব তালিম তাসাউফের গভীর আলোচক শিল্পী ।বিভিন্ন অন্চলে গিয়ে মিয়া তানসেন পালাগান করেন তার সুনাম সারা বাংলায়। মিয়া তানসেন আরো বলেন,,
তার সম্মান নস্ট করার জন্য তাদের এই উদ্যোগ।
আমি কখোনোই লিখিনি ফেসবুকে যে আমি উকিল হয়েছি।আমি এতটুকুই লিখেছি আমি একজন আইনজীবীর সহকারী হিসেবে আছি।
আমি শিখা বিশ্বাস এর এই মিথ্যা অপপ্রচারের বিচার চাই বিচার চাই বিচার চাই।

শিখা মেয়েটির সাথে মিয়া তানসেন এর ১৮ জানুয়ারী ২০২২ তারিখ পরিচয় হয়,,
এক পর্যায়ে শিখার বর্তমান সামী সেরু পাগলার বাসায় মিয়া তানসেন কে রুম ভারা করে দেন।মিয়া তানসেন জানতো না যে সেরু পাগলা তার সামী।সেরু পাগলা তার বাসা কাউন্দিয়া মসজিদ ঘাটে মজিবরের বিল্ডিং ৪ তলায় থাকেন এবং বিভিন্ন মেয়েদের বাসায় এনে সাধন ভজন করেন।
সেরু পাগলার নামে নারী নির্যাতন মামলাও আছে ১ বছর জেল হাজতী আসামী তিনি।
মিয়া তানসেন যখন জানে তার সামী সেরু পাগলা তখন সে রাত তিনটায় মালসামানা নিয়ে চলে আসে প্রিয়াঙ্গন।
হটাৎ ২৯ আগস্ট ২০২২ তারিখ শিখা তার বাসায় মিয়া তানসেন কে দাওয়াত দেন।মিয়া তানসেন আপেল,কমলা আঙুর,, ৫ হাজার টাকার ফল নিয়ে বেড়াতে যান।মিয়া তানসেন রাতে ৮ ঘটিকার সময় বাসায় ডোকার পরে শিখার গর্ভধারিনি মা খোদেজা বেগম সে ঘরের বাহিরে গিয়ে ঘরে তালা লাগিয়ে দেন এবং শিখার সামী সেরু পাগলাকেও ফোন দেন অনেক মানহানি করে জোর করে মিয়া তানসেন এর সাথে শিখা বিয়া বসতে চাইছিলো কিন্তু একপর্যায়ে বিয়ে হয়নি। মিয়া তানসেন যখন বিয়ে করায় দিমত পোষণ করেন তখনি তার নামে বিভিন্ন মানহানি করা শুরু করেন।

মিয়া তানসেন বলেন,,, শিখার সাথে আরো ৪/৫ জন বাবার বয়সি লোকেদের সাথে সম্পর্ক ছিলো তার এরকম কু চরিত্র দেখে মিয়া তানসেন বিয়েতে অমত পোষণ করেন।এবং শিখার মোট ৩ টা বিয়ে হয়েছে। তার সামী সেরু পাগলার সাথে আলাদা থেকে বিভিন্ন ছেলেদের সাথে শারিরীক ভাবে মেলামেশা করেন এবং তাও তার সামী সেরু পাগলার বাসায় বিভিন্ন ছেলে নিয়ে রাতে থাকে। এতে তার মা সহায়তা করেন।শিখা নামে একজন বাউল শিল্পী কিন্তু মাঠে এক পালা গান নেই বিগত ৭ বছর যাবত।

শিখা কিভাবে চলে? কেমনে চলে? কে খাওয়ায় এ নিয়ে পুরো মিরপুর বাসির প্রশ্ন।???পতিতা বলে আক্ষায়ীত করেছেন অনেক মানুষ।

সর্বমুলে মিয়া তানসেন এরকম কু চরিত্র দেখে শিখা মেয়েটিকে বিয়ে করতে রাজি হন নাই।
শিখার আপন মামা বলেন,,, ওরা আমাদের কোনো ভাগনী এবং ওর আমার বোন না।
ওদের কে লজ্জায় পরে পরিচয় দিতে হয়।

মিয়া তানসেন এর বয়স ২১ বছর। আর শিখা মেয়েটির বয়স ৪০ বছর আমি এরকম একটা বুড়ি মহিলা কে কেন বিয়ে করবো।শিখা বিশ্বাস অশিক্ষিত একটা মেয়ে,বংশের কোনো পরিচয় নেই।কে তার বাবা সে সিওর বলতে পারবেন না।এবং শিখার তিনটি বিয়ে হয়েছে জানামতে।এবং সে সুরা ফাতিহা টা পর্যন্ত পাট করতে পারেনা।নামাজ পরার কোনো নিয়ম কানুন সে জানেনা। তিনটা বিয়ে হয়েছে এবং নাইট ক্রিম মেখে মুখটা সুন্দর রাখে বিভিন্ন বড় লোক মানুষ কে পটিয়ে তার বাসায় নিয়ে যান এবং রঙরসে মক্ত থাকেন এবং তাদের টাকা খসান। মিয়া তানসেন বলেন আমি BBS 2st year এর একজন ছাত্র। আমার মা একজন প্রাইমেরি স্কুলের শিক্ষিকা ছিলেন,বড় ভাই সিটি ব্যাংক এ চাকরি করেন এরকম একটা ফ্যামিলি আমার,, শিখার কি যোগ্যতা আছে মিয়া তানসেন এর বউ হওয়ার??? আরো বলেন আমি যখন শিখার বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হই তখনি আমার মান হানী করা শুরু করেছেন।

ওদের চরিত্র এত খারাপ যা অনেক শিল্পীরা ওর মামার কাছে বলেছেন।
এবং মিরপুরের সকল শিল্পী রা জানে শিখার চরিত্র সম্পর্কে। টাকাও আলা পুরুষ বেছে নিয়ে কু সঙ্গে জড়িয়ে তাদের সাথে এক সাথে থাকে এবং টাকা ইনকাম করে চলে।

সর্বশেষ মিয়া তানসেন বলেন,,
আমি তার কোনো আইডি হ্যাক করিনি।তার বক্তব্য সম্পুর্ন মিথ্যা এবং বানোয়াট।মিয়া তানসেনের পাবলিসিটি নষ্ট করার জন্য লেগেছে।এবং শিখা এখোনো তানসেনের কাছে আসতে চায় কান্না কাটি করে কিন্তু মিয়া তানসেন রাজি না হওয়ায় এরকম কু রুচি পুর্ন লাইভ করতেছে।

মিয়া তানসেন এর সুক্ষ বিচার দাবি করেন।এবং তিনি অনলাইন ডিজিটাল আইনে মানহানী মামলা এবং ৯৮ ধারা প্রতারনা মামলা করবেন বলে জানিয়েছেন।
——- ইতি—–

(বাউল শিল্পী মিয়া তানসেন)
আইনজীবী সহকারী,
দায়রা ও জজ আদালত বরগুনা।
সাংগঠনিক সম্পাদক, বরগুনা
জেলা বাউল বহুমুখী সমবায় সমিতি।

Previous articleসিরাজগঞ্জে জামায়াতের ইউনিট সভাপতি-সেক্রেটারি সম্মেলন অনুষ্ঠিত।মো:সোহরাওয়ার্দী হোসেন বিশেষ প্রতিনিধি,সিরাজগঞ্জবাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামী’র সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল মাওঃ আব্দুল হালিম বলেছেন; মানবতার মুক্তি ও একটি কল্যাণ রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠায় জামায়াতের তৃণমূল দায়িত্বশীলদেরকেই পরিকল্পিতভাবে কাজ করতে হবে। ঈমানের দাবী পূরণ ও আখেরাতে নাজাতের জন্য নিজেদের নৈতিক মান সমৃদ্ধ করার পাশাপাশি নিয়মিত দাওয়াতী কাজ ও সংগঠন সম্প্রসারণে ইউনিট সভাপতি পর্যায়ের দায়িত্বশীলদেরকেই মূখ্য ভূমিকা পালন করতে হবে।সেইসাথে,একটি গ্রহনযোগ্য নির্বাচনের জন্য কেয়ারটেকার সরকারের চলমান আন্দোলনে ঐক্যবদ্ধ ভূমিকা রাখতে হবে।আজ শুক্রবার,সিরাজগঞ্জ জেলা জামায়াতে ইসলামী’র উদ্যোগে আয়োজিত ইউনিট সভাপতি সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তৃতা’য় তিনি এ কথা বলেন। কেন্দ্রীয় মজলিশে শু’রা সদস্য ও সিরাজগঞ্জ জেলা ভারপ্রাপ্ত আমীর মাওঃ আব্দুস্ ছালামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত ভার্চূয়াল সম্মেলনে প্রায় দু’শহাস্রাধিক ইউনিট সভাপতি ও সেক্রেটারীসহ বিভিন্ন পর্যায়ের দায়িত্বশীলগন অংশগ্রহণ করেন। সম্মেলনে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন;কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিষদ সদস্য অধ্যক্ষ মোঃ শাহাবুদ্দিন। সিরাজগঞ্জ জেলা সেক্রেটারি অধ্যাপক মাওঃ জাহিদুল ইসলামের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সম্মেলনে অন্যান্যো’র মাঝে আরো বক্তব্য রাখেন; কেন্দ্রীয় মজলিশে শু’রা সদস্য ও বগুড়া অঞ্চল টীম সদস্য অধ্যাপক নজরুল ইসলাম ও কেন্দ্রীয় মজলিশে শু’রা সদস্য,জেলা নায়েবে আমীর অধ্যক্ষ মোঃ আলী আলম প্রমূখ।সম্মেলনে প্রধান অতিথি সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল মাওঃ আব্দুল হালিম বলেন,যার যার দায়িত্ব সম্পর্কে আল্লাহর কাছে বিশেষভাবে প্রশ্নের মুখোমুখি হতে হবে। তিনি নবী ও সাহাবীদের উদ্ধৃতি দিয়ে আরো বলেন,যুগে যুগে নবী ও রাসূলগণ তাদের দায়িত্ব ও দ্বীনের পথে ভূমিকা ছিল ঐতিহাসিক। তিনি,উপস্থিত ইউনিট সভাপতি ও সেক্রেটারিকে ইসলামী আন্দোলনের পথে নবী ও রাসুল গনের উত্তরসরি হিসেবে সেই দায়িত্ব পালন,নিজেদেরকে আদর্শ ও নৈতিক মানে সমৃদ্ধ করারও আহবান জানান। সম্মেলনের প্রধান অতিথি মাওঃ আব্দুল হালিম তাঁর বক্তৃতায়, গ্রেফতারকৃত আমীরে জামায়াত ডা.শফিকুর রহমান,নায়েবে আমীর মাওঃ আ,ন,ম শামসুল ইসলাম, সেক্রেটারি জেনারেল অধ্যাপক মিয়া গোলাম পরোয়ার,উল্লাপাড়া ও সিরাজগঞ্জের কৃতিসন্তান জামায়াতের সহকার জেলারেল মাওঃ রফিকুল ইসলাম খাঁন ও সিরাজগঞ্জ জেলা আমীর মাওঃ শাহীনূর আলমসহ আটককৃত সকল নেতা-কর্মীর মুক্তি দাবী করে জালিম সরকারের জুলুম-নির্যাতন বন্ধ এবং চলমান কেয়ারটেকার সরকারের ফর্মূলায় একটি গ্রহনযোগ্য নির্বাচন দিতে অবৈধ তথাকথিত আ’লীগ সরকারকে বাঁধ্য করতে চলমান আন্দোলন ও আগামীতে কেন্দ্র ঘোষিত সকল কর্মসূচী বাস্তবায়নে ঐক্যবদ্ধভাবে ময়দানে ঝাঁপিয়ে পড়ার এবং বলিষ্ঠ ভূমিকা পালনের উদাত্ত আহ্বান জানান। সম্মেলনে বিশেষ অতিথি কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিষদ সদস্য অধ্যক্ষ শাহাবুদ্দিন,দ্বীন কায়েমের আন্দোলনকে বেগবান ও বিজয়ী আদর্শ হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করতে ইউনিট দায়িত্বশীলদেরকে তৃণমূল সংগঠন (ইউনিট) শক্তিশালী ও দ্বীন প্রতিষ্ঠার আন্দোলনে নিজেদের জান-মাল কুরবানী করার মানষিকতা নিয়ে ময়দানে ভূমিকা পালনের আহবান জানান। সম্মেলনের সভাপতি,কেন্দ্রীয় মজলিশে শু’রা সদস্য,জেলা ভারপ্রাপ্ত আমীর মাওঃ আব্দুস্ ছালাম,সম্মেলন সফল করতে যারা অক্লান্ত পরিশ্রম ও ভূমিকা পালন করেছেন,তাদেরসহ উপস্থিত সকল ইউনিট দায়িত্বশীলকে ধন্যবাদ জানিয়ে সংগঠনকে আরো গতিশীল করতে ইউনিট সভাপতিওসেক্রেটারিদেরকে ময়দানে জোরালো ভূমিকা পালনের উদাত্ত আহ্বান জানান এবং কারাগারে আটক জেলা আমীর অধ্যক্ষ মাওঃ শাহীনূর আলমসহ আটক সকল নেতৃবৃন্দের নিঃশর্ত মুক্তি দাবী করেন।উল্লেখ্য, ইউনিট সংগঠন হল,ওয়ার্ড সংগঠনের অধীনে জামাতের সর্বনিম্ন।
Next articleসিরাজগঞ্জে জামায়াতের ইউনিট সভাপতি-সেক্রেটারি সম্মেলন অনুষ্ঠিত।
RELATED ARTICLES

মহাদেবপুরে জমি নিয়ে বিরোধের জেরে সন্ত্রাসী কায়দায় হামলা ও বসতবাড়িতে আগুন

সুমম কুমার বুলেট নওগাঁ জেলা প্রতিনিধিঃ নওগাঁর মহাদেবপুর উপজেলার সফাপুর ইউনিয়নের কচুকুড়ি গ্রামে জমি নিয়ে বিরোধের জেরে সন্ত্রাসী...

নওগাঁর পত্নীতলায় ভুয়া ডাক্তারকে অর্ধলক্ষ টাকা জরিমানা ও তিন মাস জেল

সুমন কুমার বুলেট নওগাঁ জেলা প্রতিনিধি: নওগাঁ জেলার পত্নীতলা উপজেলায় ভ্রাম্যমান আদালতে সোমাইয়া তাবাসসুম সারা (২৪) নামের এক...

নওগাঁ জেলার ধামুরহাটে তিন মাদক কারবারিকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব

সুমন কুমার বুলেট নওগাঁ জেলা প্রতিনিধিঃ নওগাঁ জেলার ধামইরহাট উপজেলায় অভিযান চালিয়ে ১ হাজার ৩৫ লিটার চোলাই মদসহ...

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

Most Popular

মহাদেবপুরে জমি নিয়ে বিরোধের জেরে সন্ত্রাসী কায়দায় হামলা ও বসতবাড়িতে আগুন

সুমম কুমার বুলেট নওগাঁ জেলা প্রতিনিধিঃ নওগাঁর মহাদেবপুর উপজেলার সফাপুর ইউনিয়নের কচুকুড়ি গ্রামে জমি নিয়ে বিরোধের জেরে সন্ত্রাসী...

নওগাঁর পত্নীতলায় ভুয়া ডাক্তারকে অর্ধলক্ষ টাকা জরিমানা ও তিন মাস জেল

সুমন কুমার বুলেট নওগাঁ জেলা প্রতিনিধি: নওগাঁ জেলার পত্নীতলা উপজেলায় ভ্রাম্যমান আদালতে সোমাইয়া তাবাসসুম সারা (২৪) নামের এক...

নওগাঁ জেলার ধামুরহাটে তিন মাদক কারবারিকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব

সুমন কুমার বুলেট নওগাঁ জেলা প্রতিনিধিঃ নওগাঁ জেলার ধামইরহাট উপজেলায় অভিযান চালিয়ে ১ হাজার ৩৫ লিটার চোলাই মদসহ...

ইন্টারন্যাশনাল হিউম্যান রাইটস বাংলাদেশ আইন সহায়তা কেন্দ্র ফাউন্ডেশন বাসকের রাজশাহী বিভাগের উপদেষ্টা হিসেবে দায়িত্ব পেলেন সুযোগ্য সুদক্ষ আদর্শবান প্রতিভাবান ব্যক্তিত্বের অধিকারী মোহাম্মদ নূরে...

আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা বাংলাদেশ আইন সহায়তা কেন্দ্র ফাউন্ডেশন বাসক রাজশাহী বিভাগের কমিটির সম্মানিত উপদেষ্টা হিসেবে মনোনীত হলেন, সবার ভালোবাসার মানুষ ন্যায়পরায়ণতা একজন...

Recent Comments